জেলা

খবরে কলকাতা—–


চিন্তন নিউজ:২৯শে আগস্ট,২০২০:মহম্মদ হাসিব—-সুপ্রীম কোর্টের রায় পুনর্বিবেচনার আর্জি জানিয়ে আজ কলকাতার সুবোধ মল্লিক স্কোয়ার থেকে কলেজ স্ট্রিট অবধি মিছিল করে পাঁচ বাম ছাত্র সংগঠন সহ ছাত্র পরিষদ।
স্নাতক স্তরের অন্তিম বর্ষের পরীক্ষা নিতেই হবে, এই মর্মে গতকাল রায় দেয় দেশের সর্বোচ্চ আদালত। কিন্তু এই অতিমারি পরিস্থিতিতে কিভাবে শারীরিক সুস্থতা বজায় রেখে পরীক্ষা নেওয়া সম্ভব হবে, তা নিয়ে প্রশ্ন উঠছে সাধারণ মানুষের মনে। কোরোনা আক্রান্তের সংখ্যা উত্তরোত্তর বাড়ছে। এই পরিস্থিতিতে পরীক্ষা নেওয়া একদমই নিরাপদ নয় বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা। আবার কলকাতায় নানান জেলা থেকে ছাত্রছাত্রীরা পড়াশোনা করতে আসেন। চলতি আনলকেও স্বাভাবিক হয় নি ট্রেন চলাচল এবং অন্যান্য পরিবহণ। চালু হয়নি হস্টেল, মেসগুলো। এই পরিস্থিতি ভিনজেলার ছাত্রছাত্রীদের পক্ষে কলকাতায় এসে পরীক্ষা দেওয়াও সম্ভব নয়।
ছাত্রছাত্রীদের এই সমস্ত সমস্যার কথা ভেবেই আজ রাস্তায় নামে ছয়টি ছাত্র সংগঠন। এস এফ আয়, এ আয় এস এফ, পি এস ইউ, এ আয় এস বি, এ আয় এস এ এবং ছাত্র পরিষদ। সুপ্রীম কোর্টকে সাধারণ ছাত্রছাত্রীদের সমস্যার কথা মাথায় রেখে রায় পুনর্বিবেচনার আর্জি জানিয়ে এই মিছিল সংগঠিত হয়। উপস্থিত ছিলেন এস এফ আই এর সাধারণ সম্পাদক ময়ুখ বিশ্বাস, রাজ্য সম্পাদক সৃজন ভট্টাচার্য সহ অন্য সংগঠনগুলির শীর্ষ নেতৃত্ব। মিছিল শেষে সংক্ষিপ্ত সভায় সৃজন বলেন, “এই পরিস্থিতিতে পরীক্ষা নেওয়া মানে গোটা রাজ্যের ছাত্রছাত্রীদের বিপদের মুখে ফেলে দেওয়া।”

সংবাদদাতা সুব্রত চক্রবর্তী:—-আজ সকাল ৬.৩০টায় ১২১নং ওয়ার্ড জনস্বাস্থ্য কমিটির পক্ষ থেকে কর্পোরেশনের ৮০জন শ্রমিকদের সম্মান জানানো হয় গোলাপ ফুল, মাস্ক, সানিটিজার, বিস্কুট আর কেক দিয়ে।তারা এই অতিমারির সময় যে ভাবে সমাজ কে পরিষ্কার রাখার কাজ করছে তা প্রশংসনীয়।অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন ডক্টর নিলয় মজুমদার, আইনজীবী সুদীপ মিত্র, বি জি লেন শাখা সম্পাদক সিপিআই(এম), রুহুল ফারুক ও অন্যরা।

সংবাদদাতা—-দেবী দাস:- করোনা মোকাবিলায় ধারাবাহিকভাবে কলকাতাব্যাপী প্রচারে কলকাতা জেলা বিজ্ঞান মঞ্চের কর্মীরা। আজ ৮৯ নং ওয়ার্ড বিজ্ঞান সভার পক্ষ থেকে চারুমার্কেট থানার পুলিশ কর্মী, এলাকার রিক্সাচালক ভাইদের, গ্যাস সিলিন্ডার ডেলিভারি বয়দের ও ছোট ছোট দোকানদারদের মাস্ক বিতরণ করা হল।
এছাড়া জোকা ১৪২ নং ওয়ার্ডে সচেতনতা প্রচারসহ প্রান্তিক মানুষদের মধ্যে মাস্ক দেওয়া হয়।


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।