জেলা

জলপাইগুড়ি জেলা নিউজ


চিন্তন নিউজ: ১ লা সেপ্টেম্বর,২০২০:- কৌশিক দাম এর রিপোর্ট:- জলপাইগুড়ি জেলার ধুপগুড়ি ব্লকের বারোঘরিয়া গ্ৰাম পঞ্চায়েতের ভেমটিয়া ১৫/১৫২ নং বুথে ৭০ জন তৃণমূল কংগ্রেস থেকে সিপিআই (এম) এ যোগদান করেন। বারোঘরিয়া গ্ৰাম পঞ্চায়েতের একটি কর্মীসভায় তাদের হাতে দলীয় পতাকা তুলে দেন সিপিআই(এম)-এর জেলা কমিটির সদস্য কমঃ নুর আলম ও ধুপগুড়ি এরিয়া কমিটির সম্পাদক কমঃ মুকুলেশ রায় সরকার।

অপরদিকে সঞ্জিত দে জানাচ্ছেন, মানুষগুলির রেশন কার্ড নেই, তাই রেশন থেকে বিনামূল্যের রেশন থেকে বঞ্চিত।এই রকম ১২ টি পরিবারের হাতে ফের আরও একবার রেশন তুলে দিল ডি ওয়াই এফ আই।

মঙ্গলবার বিকালে বারোঘড়িয়া গ্রামপঞ্চায়েতের বিদ্যাশ্রম কদমতলা বাজারে শিবির করে চাল ডাল সহ খাদ্য শষ্য তুলে দেওয়া হয়। এই শিবিরে সংগঠনের জলপাইগুড়ি জেলা কমিটির সভাপতি নূরআলম বলেন রেশন কার্ড বিহীন মানুষ এই কঠিন সময়ে চরম দুরাবস্থার মধ্যে আছেন এ রাজ্যের বিভিন্ন জেলায়। রাজ্য সরকার এই অসহায় মানুষের বিষয়ে নির্লিপ্ত ভূমিকা নিয়ে চলছে।

ডি ওয়াই এফআই রাজ্য কমিটির পক্ষ থেকে কার্ডবিহীন সব মানুষের রেশনের দাবীতে আদালতে মামলা করে। বিচারক মহাশয়েরা সদর্থক রায় দিয়ে অবিলম্বে রাজ্য সরকারকে ব্যবস্থা নিতে আদেশ দিয়েছেন। ডিওয়াইএফ‌আই সংগঠন , রেশন কার্ডবিহীন রেশন সুনিশ্চিত করতে সিদ্ধান্ত গ্রহন করেছে।এই কর্মসূচি আজ শুরু করা হলো।

সাম্য সরকারের রিপোর্ট:- আজ জলপাইগুড়িতে ‘আশ্রয়’ হোমের আবাসিকদের মধ্যে খাদ্যসামগ্রী বিলি করা হয় ডিওয়াইএফ‌আই এর পক্ষ থেকে। বিস্কুট, সুজি, ছাতু, কলা, আপেল, মৌসম্বি, কেক সমেত অন্যান্য খাদ্যসামগ্রী এদিন হোমের সমস্ত আবাসিকদের হাতে তুলে দেওয়া হয়। করোনা পরিস্থিতিতে সম্পূর্ণ শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে এদিনের কর্মসূচি পালন করা হয় এবং প্রত্যেক আবাসিকের হাতে স্যানিটাইজার এদিন তুলে দেওয়া হয় সংগঠনের পক্ষ থেকে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ এই হোমে জলপাইগুড়ির গৃহহীন সমস্ত মানুসের সরকারি বাসস্থান। হোমের আবাসিকদের মধ্যে এদিনের কর্মসূচিকে নিয়ে ব্যাপক উৎসাহ লক্ষ করা যায়। এদিনের কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন ডিওয়াইএফ‌আই এর জলপাইগুড়ি জেলা সম্পাদক প্রদীপ দে, জলপাইগুড়ি শহর লোকাল কমিটির সম্পাদক সাম্য সরকার, জেলা নেতা দীপশুভ্র সান্যাল, নীলাঞ্জন নিয়োগী, সাগর ভৌমিক সমেত অন্যান্য নেতৃত্ব।


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।