জেলা রাজ্য

বিরোধিতার বদলে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিলো ‘হিয়ার মাঝে’ সংস্থার প্রথমদিকের বিরোধীরা।


কল্পনা গুপ্ত, পূর্ব বর্ধমান, চিন্তন নিউজ:২রা জুলাই’:– পূর্ব বর্ধমান ছোটনীলপুর পশ্চিমপাড়ায় প্রাইমারি বিদ্যালয়ের নিকটে মহিলা পরিচালিত সমাজসেবী সংস্থা ‘হিয়ার মাঝে’ থেকে একটি রান্নাকরা খাদ্যবন্টন কর্মসূচি পালিত হলো আজ অর্থাৎ ২রা জুলাই। এই লকডাউনের মধ্যেই সৃষ্টি হয় এই সংস্থাটির। মে মাস থেকেই ওরা সমাজের মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে তাদের নানান অসুবিধায় সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছে। প্রায় সাড়ে ছয় শত মানুষকে রেশন সঠিকভাবে পাওয়ার ক্ষেত্রে সাহায্য করেছে। বামপন্থায় আস্থাশীল এই সংস্থটির সদস্যা সংখ্যা তিনজন থেকে ক্রমশ বৃদ্ধি লাভ করছে। অঞ্চলের মানুষের কাছ থেকে ব্যাপক অর্থনৈতিক সাহায্যই এদের কাজের মূলধন। এর আগেও রান্না করা খাবার দেওয়া হয়েছিলো। কোন সদস্যার বিবাহ বার্ষিকী উপলক্ষের অর্থ সাহায্যে আজ হিয়ার মাঝে প্রায় ১০০জনের মধ্যে পোলাউ, ডিম, আলুর দম দেওয়া হয়েছে।

এই বিষয়ে সবিশেষ উল্লেখ্য, অঞ্চলে যারা চরম বিরোধিতার জায়গায় ছিলো বিরোধীরা তারাই আজ এই অনুষ্ঠানে নিজে হাতে হিয়ার মাঝের সাথে কাজে ছিলেন এবং বামপন্থী মানুষের সাথে একসাথে কাজ করলেন। জল এবং শরবতও সকলকে পরিবেশন করলেন। সংস্থার সদস্যা প্রথমা চ্যাটার্জি, পৌষালি চক্রবর্তী, নাজিরা মন্ডলদের কথায়, মানুষের এই মানসিকতার পরিবর্তনই আজ বামপন্থী কর্মীদের আস্থা বাড়িয়ে তুলছে।

হিয়ার মাঝের কর্ণধার নাজিরা মন্ডলের সাথে কথা বলে জানা গেলো, ওরা খুব তাড়াতাড়ি এই রকম অনুষ্ঠান আবার করবে। আরো বলেন যে, হিয়ার মাঝের মূল ভাবনা হলো অবহেলিত ও বঞ্চিত মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেওয়া। সমাজে এই কাজ সমাজকে এক পারষ্পরিক দায়বদ্ধতার মূল্যবান মূল্যবোধ গড়ে তোলার পথিকৃত।


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।