দেশ রাজ্য

উৎসব উঠোনে,আর্থিক সঙ্কটে আসমুদ্র হিমাচল।


সূপর্ণা রায়:চিন্তন নিউজ:৩রা অক্টোবর:–উৎসব এর উঠোনে সঙ্কটে আসমুদ্র হিমাচল।

এবার পূজা তে সঙ্কট বেড়াতে যাওয়ার ক্ষেত্রে।। দার্জিলিং বা গ্যাংটকে তেমন ভীড় নেই।। অনেকেই বলছেন আবহাওয়া খারাপ।। কিন্তু একটা অবাক করা বিষয় জানা গেল হোটেল মালিক আর গাড়ি চালকদের কাছ থেকে।। ভ্রমণ প্রিয় বাঙালি এবার বেড়াতে যাওয়ার দিক থেকে মুখ ঘুরিয়ছে।

সুত্রের খবর “”মন্দা”””।। অন্যান্য ছুটির থেকে শারদ উৎসবে পাহাড়ে পর্যটকের ভীড় হয় ।। পাহাড়ের লোকজন এই সময়েটাতে একটু বেশী আয়ের আশায় থাকে কিন্তু এবার মহালয়া পেরিয়ে গেলেও ভীড় নেই পর্যটকদের।। কিন্তু এমন অবস্থা হলো কেন? অ্যাসোসিয়েশন ফর কনজারভেটিভ অ্যান্ড ট্যুরিজম আহ্বায়ক রাজ বসু জানান”””মানুষের হাতে টাকা থাকলে তবেই তো বেড়াতে আসবেন।। দেশের অর্থনীতিতে মন্দা চলছেতার প্রভাব পড়েছে।। যদি ব্যাঙ্ক বন্ধ হয়ে যায়, তাহলে কি করব?? আতঙ্কে মানুষ বেড়াতে আসার পরিবর্তে আপৎকালীন পরিস্থিতির জন্য সঞ্চয় করছেন।।”””এই অবস্থার প্রভাব পড়েছে পাহাড়ে।। বিক্রি কমেছে । দারুন ধাক্কা তাদের জীবনের উপর।

নিউজলপাইগুড়ির এক গাড়ি চালক দীলিপ মোঙগা বলছিলেন এই সময়ে বাড়তি ভাড়া গুনে কে বেড়াতে আসবে?? তাহলে ভাড়া কমালেই তো হয়_জানালেন ভাড়া তারা বাড়ান নি সরকার বাড়িয়েছে।তাদের হাতে কিছু নেই।। কিন্তু ভাড়া বাড়লো কেন?? পর্যটন দপ্তরের জয়েন্ট ডিরেক্টর সম্রাট চক্রবর্তী বলেছেন ২০০৮সাল থেকে ভাড়া একই ছিল ।। সম্প্রতি ভাড়া বাড়ানো নিয়ে এক বৈঠক হয়।। তিনি বলেন পর্যটকদের কাছ থেকে কোন অভিযোগ তারা পাননি।। খারাপ আবহাওয়ার কারণে কেউ তেমন আসছে না।। শারদ উৎসবের ছুটিতে ভীড় নেই দার্জিলিং – গ্যাংটকে ।। মন্দা আড়াল করতেই আবহাওয়া র দোহাই পর্যটন দপ্তর এর।। কোটি কোটি টাকা খরচ করে পর্যটন মন্ত্রী র উদ্যোগ চলছে “”টুরিজিম কার্নিভাল””।। কিন্তু পর্যটক টানতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ এই কার্নিভাল।।

অধিকাংশ মানুষ এখন বেসরকারি সংস্থায় কাজ করেন।। এই সব মানুষ আর এবার তেমন আসছে না।। বছর ছত্রিশের তথাগত চক্রবর্তী জানান “”পুজোর ছুটিতে দার্জিলিং গ্যাংটক যাব ঠিক করে ছিলাম ।। হোটেল-গাড়ী সব বুক করা ছিল ।। পড়ে সব বাতিল করা হল।। অর্থনীতির যা অবস্থা —- এতবড় ঝুঁকি নেওয়া যায় না।।এতটাকা এখন খরচ না করাই ভালো।।। তাই বেড়াতে যাওয়া বাতিল করলাম”””_


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।