রাজ্য

লকডাউন এর সুযোগে রমরমিয়ে চলছে মদের চোরাকারবারি।


সুপর্ণা রায়:- পশ্চিমবঙ্গে চলছে পুরোদমে লকডাউন। আর এই লকডাউনের সুযোগে নেশাগ্রস্ত মানুষ এর জন্য চলছে মদের চোরাকারবারি। ফোনে বরাত দিচ্ছে কিছু অমানবিক মানুষ আর ঘরের দরজা য় পৌঁছে যাচ্ছে  নেশার জিনিস। এই অভিযোগে পূর্ব বর্ধমান জেলার মেমারি থেকে চার যুবককে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশের খবর মারফত জানতে পারা গেছে সন্তোষ দত্ত, অভিজিৎ দে,বিমল মন্ডল ও স্নেহদ্রী বাঙাল নামে এই চার জন লকডাউন ঘোষণা করার মুহূর্তে প্রচুর দেশী বিদেশী লিকার এর বোতল সংগ্রহ করে ।। তারপর চড়া দামে ঐ লিকারের বোতল প্রয়োজন অনুযায়ী চড়া দামে গ্রাহকদের বাড়ীর দরজায় পৌঁছে দিতো।

এদের মধ্যে সন্তোষ ও অভিজিৎ এর বাড়ী বর্ধমানের মেমারীতে, বিমলের বাড়ী হুগলি জেলার চন্দননগরে, এবং স্নেহাদ্রীর বাড়ি জামালপুরে।। পুলিশি হানায় একটি বাড়ী ও একটি হোটেল থেকে বিপুল পরিমাণ মদের বোতল আটক করেছে।।।জানা গেছে গচ্ছিত মদের বোতল দুটি আলমারিতে রাখা ছিল এবং এই চোরাকারবারিরা নির্দেশ অনুযায়ী মদের হোমডেলিভারী করতো।

প্রসঙ্গত পশ্চিমবঙ্গে চলছে মারাত্মক করোনা ভাইরাস সংক্রমণের তান্ডব। অসংখ্য নামী মানুষ থেকে সাধারণ মানুষ করোনা ভাইরাস সংক্রমণের কারণে মৃত্যুমুখে পতিত হচ্ছে। দিনের দিন বাড়ছে এর দাপট। বাড়ী থেকে মানুষ জন প্রয়োজন ছাড়া বেরোতে পারছে না ,তার সুযোগ নিয়ে মদের চোরাকারবারীদের পৌষমাস শুরু হয়েছে।


মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।